ব্রেকিং নিউজ

আজ- মঙ্গলবার, ২০শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৪ঠা আগস্ট, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

শিরোনাম

  আদমদীঘি ইয়াং স্টার ক্লাবের ক্রিয়া প্রতিযোগীতা       আদমদীঘিতে রক্তদহ বিলে নৌকা ডুবি মা ছেলের মুত্যু       বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করলেন নাটোর পৌর মেয়র       স্বাস্থ্য বিধি না মেনেই চলনবিলে বিভিন্ন স্থানে পর্যটকদের উপচে পড়া ভীড়       সিংড়ায় চলাচলের রাস্তা কেটে জলাবদ্ধতা তৈরির অভিযোগ       তৃণমূল নেতা-কর্মি ও সাধারণ মানুষের সাথে এমপি বকুলের ঈদ উত্তর শুভেচ্ছা বিনিময়       কোরবানীর ঈদের পরেও কর্মচঞ্চলতা নেই উত্তরাঞ্চলের বৃহত্তম চামড়া বাজারে       দাউদকান্দির আমিরাবাদে বাস উল্টে এক পথচারী নিহত       শায়েস্তাগঞ্জে বাসচাপায় দুই পথচারী নিহত, আহত-১০       বার্লিনে করোনা বিরোধী মিছিল, আটক ১৩০, আহত ৪৫ জন পুলিশ কর্মকর্তা       রাজশাহীতে গত ২৪ ঘণ্টায় ৩১ জন কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত       দেশে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় অর্ধশত মানুষ’র মৃত্যু       করোনায় স্কুল বন্ধ থাকায় বিশ্ব এক “প্রজন্মগত বিপর্যয়ের” মুখে       রসিক মেয়র সহ স্ত্রী করোনায় আক্রান্ত       চসিক’র মেয়র পদ শূন্য, প্রশাসক সুজন       কোয়ারেন্টিনে রয়েছেন ইংল্যান্ড ফেরত তামিম    

খুলনার শীর্ষ সন্ত্রাসী মিনা কামাল ‘বাগেরহাটে বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

বাগেরহাট প্রতিনিধি: খুলনার শীর্ষ সন্ত্রাসী মিনা কামাল ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত। বাগেরহাটে র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে মোস্তফা কামাল ওরফে মিনা কামাল (৫৬) নামে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান নিহত হয়েছেন।

তিনি খুলনা জেলার রূপসা উপজেলার নৈহাটি ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ছিলেন।

আজ বৃহস্পতিবার (৩০ জুলাই) ভোরে বাগেরহাট জেলার রামপাল উপজেলার খুলনা-মোংলা মহাসড়কের বাবুরবাড়ি এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। পরে রামপাল উপজেলার ঝনঝনিয়া হাসপাতালে নিয়ে আসলে সেখানে কামালের মৃত্যু হয়।

রামপাল থানার পুলিশ হাসপাতাল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতালে পাঠায়।নিহত মোস্তফা কামাল ওরফে মিনা কামাল রূপসা উপজেলার মিনহাজ উদ্দিনের ছেলে এবং রূপসা উপজেলার নৈহাটি ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান। কামালের বিরুদ্ধে ৯টি হত্যাসহ ২৫টির উপরে বিভিন্ন অপরাধের মামলা রয়েছে।

র‌্যাব-৬ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল রওশনুল ফিরোজ বিটিসি নিউজ এর প্রতিবেদককে বলেন , মাদক ব্যবসায়ীদের গোপন বৈঠকের খবর পেয়ে রামপাল তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের কাছে বাবুর বাড়ি এলাকায় গেলে তারা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে গুলি চালায়। আত্মরক্ষার্থে র‌্যাবও গুলি চালায়। এক পর্যায়ে সশস্ত্র মাদক কারবারিরা পিছু হটলে ঘটনাস্থলে গুরুত্বর আহত অবস্থায় মিনা কামালকে পাওয়া যায়।

পরে মিনা কামালকে রামপালের ঝনঝনিয়া হাসপাতালে নেয়া হলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার মৃত্যু ঘোষণা করেন। পরে ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, ৫০০ পিস ইয়াবা, একটি চাকু ও নগদ ৬৭ হাজার টাকা উদ্ধার করে র‌্যাবের সদস্যরা।

রামপাল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. দেলোয়ার হোসেন বিটিসি নিউজ এর প্রতিবেদককে বলেন, আমরা ঝনঝনিয়া হাসপাতাল থেকে কামালের মরদেহ উদ্ধার করেছি। সুরহাতল রিপোর্ট শেষে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ বাগেরহাট সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছি। র‌্যাবের পক্ষ থেকে মামলার প্রস্তুতি চলছে। মামলা দায়ের হলে আরও বিস্তারিত জানা যাবে বলে জানান তিনি।

উল্লেখ্য, মিনা কামাল খুলনার রূপসা উপজেলার চিহ্নিত খুনি-সন্ত্রাসী। জেলা পুলিশের শীর্ষ অস্ত্রধারী সন্ত্রাসীর তালিকায় ছিল তার নাম। আবার দলীয় পদ-পদবি না থাকলেও নিজেকে যুবলীগ নেতা দাবি করতেন মিনা কামাল। তার বিরুদ্ধে ২৫টিরও বেশি মামলা, শতাধিক সাধারণ ডায়েরি (জিডি) রয়েছে। যার মধ্যে নয়টি খুনের মামলা।

সংবাদ প্রেরক বিটিসি নিউজ এর বাগেরহাট প্রতিনিধি মাসুম হাওলাদার। #

Comments are closed.